সরাসরি বিষয়বস্তুতে যান

সরাসরি দ্বিতীয় মেনুতে যান

সরাসরি বিষয়সূচিতে যান

যিহোবার সাক্ষিরা

বাংলা

তরুণ-তরুণীদের ১০ প্রশ্নের উত্তর

 প্রশ্ন ১

আমি কী ধরনের ব্যক্তি?

আমি কী ধরনের ব্যক্তি?

যে-কারণে এটা জানা গুরুত্বপূর্ণ

তুমি কী ধরনের ব্যক্তি ও তুমি কী বিশ্বাস করো, তা যদি তোমার জানা থাকে, তা হলে তুমি চাপের মুখে বিজ্ঞ সিদ্ধান্ত নিতে পারবে।

তুমি হলে কী করতে?

এই দৃশ্যটা কল্পনা করো: ক্যারেন, যে এখনও অপ্রাপ্তবয়স্ক, সবেমাত্র একটা পার্টিতে এসেছে। একটু পরেই সে একটা পরিচিত কণ্ঠস্বর শুনতে পায়।

“এখানে চুপচাপ দাঁড়িয়ে আছ কেন?”

ক্যারেন ঘুরে দেখে তার বান্ধবী জেসিকা হাতে দুটো মদের বোতল নিয়ে দাঁড়িয়ে আছে। জেসিকা ক্যারেনের দিকে একটা বোতল বাড়িয়ে দিয়ে বলে, “মজা করার জন্য একটু খেলে দোষের কিছু নেই, এ ছাড়া তুমি তো আর ছোটো নও।”

ক্যারেন না বলতে চায় কিন্তু জেসিকা তার বন্ধু আর সে চায় না, তার বন্ধু তাকে একঘেয়ে এবং নীরস বলে মনে করুক। এ ছাড়া, সে মনে করে জেসিকা সত্যিই একটা ভালো মেয়ে। আর সে যেহেতু খাচ্ছে, তা হলে নিশ্চয়ই এটা ভালো। ক্যারেন চিন্তা করে, ‘একটু মদ খেলে কী-এমন হবে, আমি তো আর ড্রাগ নিচ্ছি না।’

তুমি যদি ক্যারেনের জায়গায় থাকতে, তা হলে তুমি কী করতে?

একটু থেমে চিন্তা করো!

এই ধরনের পরিস্থিতিতে তুমি যদি বিজ্ঞ সিদ্ধান্ত নিতে চাও, তা হলে তোমাকে জানতে হবে, তুমি কী ধরনের ব্যক্তি। তুমি কী ধরনের ব্যক্তি, তা প্রকাশ করে তোমার নৈতিক মান কী ও তুমি কী বিশ্বাস করো। এটা জানা থাকলে তুমি নিজে তোমার জীবনকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারবে, অন্যেরা নয়।—১ করিন্থীয় ৯:২৬, ২৭.

কীভাবে তুমি এইরকম ক্ষমতা গড়ে তুলতে পার? পরবর্তী প্রশ্নগুলোর উত্তর বের করার মাধ্যমে শুরু করতে পার।

 ১ আমার কী কী ক্ষমতা রয়েছে?

তুমি যদি তোমার বিভিন্ন সামর্থ্য ও ইতিবাচক বৈশিষ্ট্য সম্বন্ধে জানো, তা হলে সেটা তোমার আত্মবিশ্বাসকে বৃদ্ধি করবে।

বাইবেলের উদাহরণ: প্রেরিত পৌল লিখেছিলেন: “যদিও আমি বক্তৃতায় সামান্য, তথাপি জ্ঞানে সামান্য নই।” (২ করিন্থীয় ১১:৬) শাস্ত্র সম্বন্ধে পৌলের উত্তম বোধগম্যতা ছিল বলে তিনি সেই সময় দৃঢ় থাকতে পেরেছিলেন, যখন অন্যেরা তার সম্বন্ধে নেতিবাচক কথা বলেছিল। তিনি তাদের নেতিবাচক কথার দ্বারা নিজের আত্মবিশ্বাসকে দুর্বল হতে দেননি।—২ করিন্থীয় ১০:১০; ১১:৫.

নিজেকে বিশ্লেষণ করো।: তোমার একটা প্রতিভা বা দক্ষতা সম্বন্ধে লেখো।

এখন তোমার কোনো দৃঢ় গুণ সম্বন্ধে বর্ণনা করো। (উদাহরণ স্বরূপ, তুমি কি যত্নবান? উদার? নির্ভরযোগ্য? সময়ানুবর্তী?)

২ আমার কী কী দুর্বলতা রয়েছে?

একটা শিকলের সেই অংশটা সহজেই ভেঙে যেতে পারে, যে-অংশটা সবচেয়ে বেশি দুর্বল। একইভাবে, তোমার নৈতিক মান ও তুমি যা বিশ্বাস করো, তা সহজেই নষ্ট হয়ে যেতে পারে, যদি তোমার দুর্বলতাগুলো তোমার জীবনকে নিয়ন্ত্রণ করে।

বাইবেলের উদাহরণ: পৌল জানতেন, তার কী কী দুর্বলতা রয়েছে। তিনি লিখেছিলেন: “বস্তুতঃ আন্তরিক মানুষের ভাব অনুসারে আমি ঈশ্বরের ব্যবস্থায় আমোদ করি। কিন্তু আমার অঙ্গপ্রত্যঙ্গে অন্য প্রকার এক ব্যবস্থা দেখিতে পাইতেছি; তাহা আমার মনের ব্যবস্থার বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে, এবং পাপের যে ব্যবস্থা আমার অঙ্গপ্রত্যঙ্গে আছে, আমাকে তাহার বন্দি দাস করে।”—রোমীয় ৭:২২, ২৩.

নিজেকে বিশ্লেষণ করো।: তোমার কোন কোন দুর্বলতা নিয়ন্ত্রণ করা শিখতে হবে?

 ৩ আমার কী কী লক্ষ্য রয়েছে?

তুমি কি একটা অটোতে চড়ার পর চালককে একই জায়গায় বার বার ঘুরতে বলবে, যতক্ষণ পর্যন্ত না অটোর জ্বালানি শেষ হয়? এটা হবে মূর্খতার কাজ—আর সেইসঙ্গে ব্যয়বহুল!

এখান থেকে কী শিক্ষা লাভ করা যায়? নির্দিষ্ট লক্ষ্য থাকলে, তুমি জীবনে একটা সুনির্দিষ্ট পথ ধরে চলতে পারবে আর তোমাকে একই জায়গায় বার বার ঘুরতে হবে না। বরং তোমার একটা নির্দিষ্ট গন্তব্য থাকবে এবং তুমি সেখানে পৌঁছানোর পরিকল্পনা করতে পারবে।

বাইবেলের উদাহরণ: পৌল লিখেছিলেন: “আমি এরূপে দৌড়িতেছি যে বিনালক্ষ্যে নয়।” (১ করিন্থীয় ৯:২৬) উদ্দেশ্যহীনভাবে জীবনযাপন করার পরিবর্তে পৌল বিভিন্ন লক্ষ্যস্থাপন করেছিলেন এবং সেগুলোর সঙ্গে মিল রেখে জীবনযাপন করেছিলেন।—ফিলিপীয় ৩:১২-১৪.

নিজেকে বিশ্লেষণ করো।: তোমার তিনটে লক্ষ্য সম্বন্ধে লেখো, যেগুলো তুমি আগামী বছরের মধ্যে অর্জন করতে চাও।

৪ আমার কী কী দৃঢ়বিশ্বাস রয়েছে?

তুমি যখন তোমার নৈতিক মান ও তুমি যা বিশ্বাস করো, তা মেনে চলার জন্য দৃঢ়সংকল্পবদ্ধ হও, তখন তুমি দৃঢ়বদ্ধমূল একটা গাছের মতো হয়ে ওঠো, যেটা প্রচণ্ড ঝড়ের মধ্যেও টিকে থাকতে পারে

তোমার যদি দৃঢ়বিশ্বাস না থাকে, তা হলে তুমি সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগবে। সঙ্গীসাথিদের কাছে গ্রহণযোগ্য হওয়ার জন্য গিরগিটির মতো তুমিও রং বদলাতে থাকবে আর এটা হচ্ছে এক স্পষ্ট লক্ষণ যে, তুমি কী ধরনের ব্যক্তি, সেটা তুমি জানো না।

অন্যদিকে, সঙ্গীসাথিরা যা-ই করুক না কেন, তুমি যখন তোমার দৃঢ়বিশ্বাসের সঙ্গে মিল রেখে কাজ করবে, তখন তোমার এই বিষয়টা মনে থাকবে যে, তুমি কী ধরনের ব্যক্তি।

বাইবেলের উদাহরণ: ভাববাদী দানিয়েল যখন সম্ভবত কিশোরবয়সি ছিলেন, তখন তিনি ‘মনে স্থির করিয়াছিলেন যে,’ তিনি ঈশ্বরের আইনের বাধ্য থাকবেন, এমনকী যদিও তিনি তার পরিবার থেকে দূরে ছিলেন। (দানিয়েল ১:৮) তা করার দ্বারা দানিয়েল তার দৃঢ়বিশ্বাস বজায় রাখতে পেরেছিলেন এবং সেই বিশ্বাস অনুযায়ী জীবনযাপন করেছিলেন।

নিজেকে বিশ্লেষণ করো।: তোমার কী কী দৃঢ়বিশ্বাস রয়েছে? উদাহরণ স্বরূপ: তুমি কি ঈশ্বরে বিশ্বাস করো? যদি করো, তা হলে কেন? কোন প্রমাণ তোমাকে বিশ্বাস করতে পরিচালিত করেছে যে, ঈশ্বর আছেন?

তুমি কি বিশ্বাস করো, ঈশ্বরের নৈতিক মানগুলো তোমার জন্য উপকারজনক? যদি করো, তা হলে কেন?

তুমি কোনটার মতো হতে চাও—ঝরে পড়া একটা পাতার মতো, যেটা একটু বাতাসেই এদিক-সেদিক উড়ে যায়, না কি একটা গাছের মতো, যা প্রচণ্ড ঝড়ের মধ্যেও টিকে থাকে? তোমার নৈতিক মান ও তোমার বিশ্বাস দৃঢ় করো আর তা হলেই তুমি সেই গাছের মতো হতে পারবে। এটা তোমাকে এই প্রশ্নের উত্তর দিতে সাহায্য করবে, আমি কী ধরনের ব্যক্তি?